গত নির্বাচনে জিরো এবার তিনি কোটিপতিঃ ৫ বছরে এমপি মুস্তফা লাখকে কোটি বানিয়েছেন!

ডিসেম্বর ৫, ২০১৮ ১০:৩৬ দুপুর

এসএম বাচ্চু, তালা:

২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারির নির্বাচনে সাতক্ষীরা-১ (তালা-কলারোয়া) আসনে মহাজোট থেকে এমপি হন জেলা ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি,কেন্দ্রীয় পলিট ব্যুরো সদস্য এ্যাড: মুস্তফা লুৎফুল্লাহ।

২০১৪ সালও ২০১৮ সালের নির্বাচনী হলফনামার প্রাপ্ত তথ্য ও আমার এমপি ডটকম থেকে জানা যায়, মহাজোট থেকে সাতক্ষীরা-১(তালা-কলারোয়া) আসনে এমপি হয়ে শূন্য থেকে কোটিপতি হয়েছেন মুস্তফা লুৎফুল্লাহ। বলা যায় জিরো থেকে কোটিপতি।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে সাতক্ষীরা-১ আসনের জন্য মনোনয়নপত্রের সঙ্গে দাখিল করা হলফনামা থেকে তথ্য জানা যায়।

২০১৪ সালের নির্বাচনী হলফনামায় মুস্তফা লুৎফুল্লাহ উল্লেখ করেছিলেন, ওই সময়ে তার হাতে নগদ কোনো অর্থ ছিল না। পরিবারের সদস্যদের মোট সোনার গহনার পরিমাণ ২০ ভরি, যার মূল্য দেখানো হয়েছিল ২ লাখ টাকা, একটি এক লাখ টাকার মোটরসাইকেল, ইলেকট্রনিক সামগ্রী এক লাখ ২০ হাজার টাকা, ফার্নিচার ৫০ হাজার টাকা, অকৃষি জমি ১২ হাজার টাকা এবং ১১ লাখ ৩০ হাজার টাকার মূল্যের একটি বাড়ি।

২০১৮ সালের নির্বাচনী হলফনামায় মুস্তফা লুৎফুল্লাহ উল্লেখ করেছেন, তার এক কোটি ৪ লাখ ৫০ হাজার টাকার অস্থাবর সম্পদ ও ১১ লাখ ৪২ হাজার টাকার স্থাবর সম্পদ রয়েছে। সংসদ সদস্য ভাতাদি ও অন্যান্য আয় বছরে ২৪ লাখ ৮৩ হাজার ১৪৬ টাকা।

এছাড়া নগদ ৪৭ লাখ ১২ হাজার ৮৮৮ টাকা রয়েছে তার। ব্যাংকে জমা ৩ লাখ ৮২ হাজার ৪০২ টাকা। প্যারাডো জিপের মূল্য ৪৪ লাখ ৬৭ হাজার ৮০ টাকা। এ জিপটি ব্যবহার করছেন তিনি। তবে অন্য দুটি /একটি প্রাইভেট কারের কথা তিনি উল্লেখ করেননি ।

হলফনামায় তিনি আরও উল্লেখ করেছেন, ১ লাখ টাকার একটি মোটরসাইকেল, ইলেকট্রনিক যন্ত্রপাতি ৪ লাখ ২০ হাজার টাকা, আসবাবপত্র ১ লাখ টাকা, ২ লাখ ৬৮ হাজার টাকার রিভালবার ও ১২ হাজার টাকার অকৃষি জমি রয়েছে। সেই সঙ্গে ১১ লাখ ৩০ হাজার টাকা মূল্যের একটি বাড়ি রয়েছে তার।