তালিকা তৈরীতে অনিয়ম হওয়ায় বাতিল, তাহিরপুরের বাদাঘাট ইউনিয়নে ধান সংগ্রহের লটারী ১ আগস্ট

জুলাই ৩১, ২০১৮ ৪:৫০ দুপুর

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি
সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলায় কৃষকের তালিকায় তৈরীতে অনিয়মের অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় বাদাঘাট ইউনিয়ন থেকে আসা নামের তালিকা থেকে ৫৫জন জন কৃষকের নাম বাতিল করেছে তাহিরপুর উপজেলা বোরো ধান সংগ্রহ কমিটি। গত রবিবার (২৯জুলাই) তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে বোরো ধান ক্রয় কমিটির সভায় এ সিদ্ধান্ত হয়েছে। বাদাঘাট ইউনিয়নে ধান সংগ্রহের আগের নামের তালিকা বাতিল করে ১আগস্ট বুধবার সকাল ১১ঘটিকায় লটারির মাধ্যমে উপজেলা বোরো ধান সংগ্রহ কমিটির উপস্থিতিতে কৃষকের নামের তালিকা নতুন করে চূড়ান্ত করা হবে।

একাধিক সূত্রে জানাযায়,চলতি বছর মে মাসে বোরো ধান সংগ্রহের জন্য তাহিরপুর উপজেলায় ৫শত মেট্রিক টন ধান সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারিত হয়। ৫শত মেট্রিকটন ধান উপজেলার ৭টি ইউনিয়নে আনুপাতিক হারে বণ্টনের প্রেক্ষিতে বাদাঘাট ইউনিয়নে ৫৫মেট্রিক টন ধান দিতে পারবে। সেই অনপাতে বাদাঘাট ইউনিয়ন পরিষদ ৫৫মেট্রিকটন ধান ইউনিয়নের ৯টি ওয়ার্ডে বন্টন না করে শুধু ৪নং ওয়ার্ডে বরাদ্দ করা হয়। তালিকা তৈরীতে এ ধরনের অনিয়ম ও স্বজনপ্রীতির অভিযোগ এনে বাদাঘাট ইউনিয়নের পাতারগাঁও গ্রামের জায়েদ আলী তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবরে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগের বিষয়টি তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার উপজেলা কৃষি অফিসারকে তর্দন্তের জন্য নির্দেশদেন।

তাহিরপুর উপজেলা কৃষি অফিসার মুহাম্মদ আব্দুছ ছালাম বলেন,অভিযোগটি সরেজমিনে তদন্ত করে তালিকায় অনিয়মের বিষয়ে সত্যতা পাওয়া গেছে। তদন্ত প্রতিবেদন তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবরে দাখিল করেছি।
তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পূর্ণেন্দু দেব বলেন,বাদাঘাট ইউনিয়ন থেকে খাদ্য গোদামে ধান দেয়ার বিষয়ে কৃষকের তালিকা তৈরীতে অনিয়ম হওয়ায় তালিকাটি সভা ডেকে বাতিল করা হয়েছে। নতুন করে তালিকা তৈরী করে পুনরায় উপজেলা খাদ্য গোদামে জমা দিতে বাদাঘাট ইউপি চেয়ারম্যানকে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য,চলতি অর্থবছরে তাহিরপুর উপজেলায় ৫০০মেট্রিক টন ধান সংগ্রহের বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। যা উপজেলার ৭টি ইউনিয়নের মধ্যে বণ্টন করে প্রতিটি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানদেরকে কৃষকদের মধ্যে বণ্টন করার দায়িত্ব দেয়া হয়েছিল।