ট্রাফিক সার্জনের লাঠির আঘাতে চোখ হারাতে বসেছে কিশোর রিকশাচালক

May 19, 2020 9:19 pm

নিউজ ডেস্ক

নোয়াখালীতে ট্রাফিক সার্জনের পিটুনিতে এক কিশোর অটোরিকশাচালক মারাত্ম আহত হয়েছে। সার্জনের লাঠির আঘাতে অল্পের জন্য তার চোখ বেচে গেলেও এখনো ঝুঁকিমুক্ত নয়। তাকে জেলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। নোয়াখালী জেলা সদরের ট্রাফিক বিভাগের সার্জন দেলোয়ার হোসেন কিশোর অটোচালককে পেটানর ঘটনায় অভিযুক্ত।

মঙ্গলবার সকাল ১১ টায় এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, সদর উপজেলার কোশাখালী ইউনিয়নের জামাল উদ্দিনের ছেলে আরমান (১৬) মাইজদী জেল খানা রোডে অটো রিকশা চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করে। সকালে সদরের ট্রাফিক সার্জন দেলোয়ার হোসেনের মোটরসাইকেলের পাশে রিকশা থামিলে দাঁড়িয়েছিল আরমান। এ সময় পেছন থেকে অজ্ঞাত একটি অটোরিকশা সার্জনের মোটরসাইকেলে ধাক্কা দিয়ে চলে যায়। কিন্তু সার্জন দেলোয়ার আরমানকে রাস্তায় ফেলে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়।

সার্জনের এমন নির্দয় আচরণে তার চোখে বড় ধরনের ক্ষতি হয়েছে। ডাক্তার বলছে, তার চোখ ঝুঁকিমুক্ত নয়। চোখের পাশে যে আঘাত লেগেছে তার প্রভাব চোখে পড়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

এদিকে ভিকটিম বিষয়টি নোয়াখালী পৌর মেয়র শহীদ উল্যাহ খানঁ সোহেলকে অবহিত করেন।

এ ব্যাপারে নোয়াখালী জেলা পুলিশ সুপার আলমগীর হোসেন বলেন, লিখিত অভিযোগ দিলে অভিযুক্ত সার্জনের বিরুদ্ধে তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Please follow and like us: