নবীগঞ্জে পুকুরে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে ভাতিজার হাতে চাচা খুন

May 24, 2020 5:33 pm
Spread the love

মোঃ আলমগীর মিয়া নবীগঞ্জ প্রতিনিধি

আর মাত্র একদিন বাকি ঈদের। রাত পোহালেই ঈদুল ফিতর। পুুকুরে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে ভাতিজার হাতে খুন হলেন চাচা হাজ্বী আয়ূব আলী (৭৫)। নবীগঞ্জ উপজেলার আউশকান্দি ইউনিয়নের উমরপুর গ্রামে পুকুরে মাছ ধরাকে কেন্দ্র করে ভাতিজার হাতে খুন হন তিনি। এ ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। ঘটনাটি সংগঠিত হয়েছে রবিবার (২৪ মে) বেলা ১১ টায়। ঘটনার খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানার একদল পুলিশ লাশ উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট তৈরী করে। এ রিপোর্ট লিখা পর্যন্ত লাশটি নবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেজে ছিল।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সুত্রে জানাযায়, উপজেলার উমরপুর গ্রামের পুকুরে মাছ চাষ কে কেন্দ্র করে আবুল হোসেন ও চাচাতো ভাই জিতু মিয়ার মধ্যে বেশ কিছু দিন যাবৎ বিরোধ চলে আসছিল। এই বিরোধীয় অবস্থায় রবিবার বেলা ১১ টার দিকে জিতু মিয়া তার লোকজন নিয়ে বিরোধীয় পুকুরে জাল ফেলে মাছ ধরতে যায়। এ সময় মারদাঙ্গা না হওয়ার জন্য দু’ পক্ষেরই মুরব্বি (চাচা) আইয়ুব মিয়া পুকুরপাড়ে গিয়ে মাছ না ধরতে বলেন। বিষয়টি গ্রামের মুরব্বিয়ান সালিশের মাধ্যমে দেখা হবে বললে এ নিয়ে চাচা আইয়ুব মিয়ার সাথে ভাতিজা জিতু মিয়ার বাকবিতন্ডা হয়। এক পর্যায়ে রেগে জিতু মিয়া চাচা আইয়ুব মিয়াকে পুকুরপাড়ের ঘাটলার মধ্যে স্বজোরে ধাক্কা মেরে ফেলে দেয়। এতে তিনি ঘটনাস্থলেই জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। সাথে সাথে তাকে উদ্বার করে নবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করেন। এ ব্যাপারে নবীগঞ্জ থানার ওসি মোঃ আজিজুর রহমান বলেন, ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়েছি। বিষয়টি তদন্ত চলছে। মামলা হলে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।