কাপাসিয়ায় বাড়িতে নিরাপদ প্রসব নিশ্চিত করতে রিমি এমপির অনন্য উদ্যোগ

June 20, 2020 7:34 pm

আসাদুল্লাহ মাসুম, কাপাসিয়া (গাজীপুর) প্রতিনিধিঃ

গাজীপুর-৪ আসনের সংসদ সদস্য সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি বঙ্গতাজ কন্যা সিমিন হোসেন রিমির উদ্যোগে ৬ দিন ব্যাপী ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড ভিত্তিক দাইগণের প্রশিক্ষণ কর্মশালা শেষ হয়েছে ।

উপজেলা প্রশাসন ও স্বাস্থ্য বিভাগের সহযোগিতায় এবং উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের আয়োজনে সামাজিক দূরত্ব ও স্বাস্থ্য বিধি মেনে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সভাকক্ষে এই প্রশিক্ষণ কর্মশালা ১১ জুন থেকে ১৭ জুন পর্যন্ত হয়।

ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে প্রশিক্ষণ কর্মশালার শুভ উদ্বোধন করেন সিমিন হোসেন রিমি এমপি। উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নের ১৮ জন করে মোট ১৯৮ জন দাই এই প্রশিক্ষণে অংশগ্রহন করেন। প্রশিক্ষণ কর্মশালা পরিচালনা করেন উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ আব্দুস সালাম সরকার। গাইনী বিশেষজ্ঞ ডাঃ নুসরাত জাহান খান ১৯৮ জন দাইকে হাতে কলমে প্রশিক্ষণ দেন। উপজেলার তৃণমূল পর্যায়ের দাইগণকে প্রশিক্ষিত করার মাধ্যমে প্রতিটি বাড়িতে নিরাপদ প্রসব নিশ্চিত করাই ছিল এই প্রশিক্ষণ কর্মশালার মূল উদ্দেশ্য।

প্রশিক্ষণ কর্মশালা চলাকালে প্রতিদিন সিমিন হোসেন রিমি এমপি ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে যুক্ত ছিলেন। প্রশিক্ষনের প্রতিটি সেশনে তিনি প্রশিক্ষণার্থী দাইগণের সাথে কথা বলেন। প্রসবপূর্ব, প্রসবকালীন ও প্রসবপরবর্তী মা ও নবজাতকের জটিলতা ও কুসংস্কার বিষয়ে তিনি প্রশিক্ষণার্থী দাইগণকে সচেতন করেন। জ্ঞানের অভাবে অথবা অবহেলার কারণে কোন মা ও নবজাতকের জীবন যাতে বিপন্ন না হয় তা নিশ্চিত করতে সকলকে অত্যন্ত সতর্ক ও দায়িত্ববান হওয়ার আহ্বান জানান তিনি। প্রসূতি মা ও নবজাতকের যে কোন জটিলতার ক্ষেত্রে বিলম্ব না করে দ্রুত সরকারি হাসপাতালে ‘রেফার’ করার বিষয়ে তিনি গুরুত্ব দেন।

সিমিন হোসেন রিমি তাঁর সমাপনী বক্তব্যে প্রশিক্ষণ সম্পন্ন করা ১৯৮ জন দাইকে ‘ডেলিভারি কিট’ ও ‘প্রসব সহায়তাকারীর টুলবক্স’ প্রদানের অঙ্গীকার করেন। নিরাপদ প্রসবের কাজে নিয়োজিত প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ১৯৮ জন দাইয়ের পাশে থাকার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেন তিনি।

প্রশিক্ষণ কর্মশালার সমাপনী দিনে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত দাইগণের নাম, ঠিকানা ও ফোন নম্বরসহ ইউনিয়ন ভিত্তিক লিফলেট বিতরণ করা হয়। করোনা মহামারীতে গর্ভবতী/ প্রসূতি মাকে স্বাস্থ্য সচেতন করতে প্রয়োজনীয় তথ্য ও জরুরি ফোন নম্বর প্রচার করা হয় এই লিফলেটে। এম পি সিমিন হোসেন রিমির উদ্যোগে উপজেলার ১১ টি ইউনিয়নে ৪৪ হাজার লিফলেট বিতরণ করা হয়।

প্রশিক্ষণের সমাপনী দিনে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোসাঃ ইসমত আরা বলেন, “সিমিন হোসেন রিমি এম পি মহোদয়ের পৃষ্ঠপোষকতায় কাপাসিয়া উপজেলাকে মাতৃমৃত্যু মুক্ত রাখতে বিভিন্ন উদ্ভাবনী উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। যার ধারাবাহিকতা হয় এই প্রশিক্ষণ কর্মশালা”।

প্রশিক্ষণ কর্মশালার আয়োজক ও সমন্বয়ক উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা অফিসার মোহাম্মদ আব্দুর রহিম বলেন, “এই প্রশিক্ষণের মাধ্যমে ১৯৮ জন প্রশিক্ষিত দাই কাপাসিয়া উপজেলার সার্বিক স্বাস্থ্য ব্যবস্থার সাথে যুক্ত হলেন। মাঠ পর্যায়ের সরকারি সেবাদানকারীদের সাথে তাদের সমন্বয়ের মাধ্যমে নিরাপদ প্রসব নিশ্চিত করার কাজটি আরও সহজ হলো”।

প্রশিক্ষণ কর্মশালার গুরুত্ব সম্পর্কে জানতে চাইলে সিমিন হোসেন রিমি, এম পি বলেন, “বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে এই ধরনের প্রশিক্ষণ কর্মশালার গুরুত্ব ও প্রয়জনীয়তার কথা উপলব্ধি করেই আমরা এই উদ্যোগ গ্রহণ করেছি। উল্লেখযোগ্য হারে শিশুমৃত্যু হ্রাস করাসহ কাপাসিয়া উপজেলাকে মাতৃমৃত্যু মুক্ত রাখতে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত দাইগন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবেন বলে আমার বিশ্বাস” ।

Please follow and like us: