ফতুল্লায় ময়নার অনৈতিক দাবী পুরণ না করায় দারোগার বিরুদ্ধে এসপির কাছে অভিযোগ

July 15, 2020 6:42 pm

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

তালাকপ্রাপ্ত স্বামীকে ফাঁসাতে ছেলে অপহরণ নাটক সাজানোর অভিযোগ উঠেছে দেলপাড়া এলাকার ময়নার বিরুদ্ধে।এদিকে অপহরণের নাটক ফাঁস হওয়ায় উল্টো থানা পুলিশকে চাপে রাখতে পুলিশ সুপারের কাছে মিথ্যা অভিযোগ দিয়েছে ময়না আক্তার।

সূত্র জানায়, চলতি মাসের ৩ তারিখ সিয়াম(১৬) দেলপাড়া থেকে নিখোঁজ হয়। এঘটনায় নিখোঁজ সিয়ামের মা ময়না ফতুল্লা মডেল থানায় সাধারন ডায়েরী করেন। নিখোঁজ সিয়ামকে উদ্ধার করতে ফতুল্লা মডেল থানার এসআই সালেকুজ্জামান তথ্যপ্রযুক্তির সাহায্য নেয়। মোবাইল ট্রেকিং এ চলতে মাসের ৭ তারিখ নিখোঁজ সিয়াম মা ময়নার সাথে মোবাইল ফোনে একাধিকবার কথা বলেন এবং জেলার আড়াইহাজার থানার পাঁচগাঁও কালীবাড়ি নানা বাড়ীতে অবস্থান করেন। পুলিশ সিয়ামকে উদ্ধার করতে গিয়ে এর সত্যতা পান।

এব্যাপারে নিখোঁজ সিয়ামের মামী ফরিদা ইয়াসমিনের সাথে মুঠোফোনে(০১৯০৪৩৩৭২২০) যোগাযোগ করা হলে জানান, সিয়াম এখানে এসে ৪/৫ দিন থেকে আবার চলে যায়। তবে কোথায় আছে তা তিনি জানেন না।
সূ্ত্র জানায়, চলতি মাসের ৭ তারিখ ময়নার স্বামী আলমাসের সাথে ময়নার ডিভোর্স হয়।স্বামীকে ফাঁসাতে ময়না আক্তার ছেলেকে স্বেচ্ছায় আত্মগোপনে রেখে পুলিশকে দিয়ে গ্রেফতারের চেষ্টা করেন। পুলিশ ময়নার অনৈতিক দাবী পূরনে অপরাগতা প্রকাশ করলে ঘটনার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই সালেকুজ্জামানের বিরুদ্ধে পুলিশ সুপারের কাছে চাঁদাবাজীর মিথ্যা অভিযোগ দায়ের করেন।

থানা সূত্র জানায়, ময়নার বিরুদ্ধে গত ১৯ মার্চ ফতুল্লা মডেল থানায় একটি চাঁদাবাজী মামলা দায়ের হয়েছে। আলীগঞ্জের পলি বেগম বাদী হয়ে এই মামলা দায়ের করেন।

Please follow and like us: