চট্রগ্রাম থেকে ছিনতাইকৃত প্রাইভেটকার সোনাগাজীতে উদ্ধার, গ্রেফতার ৩

September 24, 2020 12:58 pm
Spread the love

আমির হোসেন কিরন

চট্টগ্রামের পাঁচলাইশ থেকে যাত্রীবেশে ছিনতাইকৃত একটি প্রাইভেটকার স্থানীয় জনতার সহযোগিতায় উদ্ধার করেছে সোনাগাজী মডেল থানার পুলিশ। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে বৃহস্পতিবার ভোরে তিন ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গ্রেফতারকৃতরা হলো- বান্দরবান জেলার বান্দরবান সদর থানার উজানী পাড়া গ্রামের সজিব বড়ুয়ার ছেলে সুমন বড়ুয়া (২১), নোয়াখালী জেলার সুধারাম থানার মতিপুর গ্রামের মো. জাফরের ছেলে মো. রাজিব হোসেন ইমন (২০) ও একই থানার করিতলা গ্রামের আবুল হাসানের ছেলে আরিফুর রহমান (১৯)।

পুলিশ জানায়, নোয়াখালী যাওয়ার কথা বলে বুধবার সন্ধ্যা সাতটার দিকে চট্রগ্রামের পাঁচলাইশ থেকে একটি প্রাইভোটকার (চট্রোমেট্রো-চ-১২-৬৭৭৯) ভাড়া করে তিন যুবক। তারা সোনাগাজী-দাগনভূঞা উপজেলার সীমান্ত এলাকা ফাজিলের ঘাট রোডের নির্জন স্থানে পৌঁছলে রাত ৯টার দিকে চালক খোরশেদ আলমের গলায় ও মুখে গামছা বেঁধে গাড়ি থেকে সড়কে ফেলে দেয়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে পুলিশে খবর দিলে পুলিশ, ছাত্রলীগের নেতাকর্মী ও স্থানীয় জনতা উপজেলার ডাকবাংলা, কাজীরহাট, কুঠিরহাটসহ কয়েকটি সড়কে পাহারা বসায়। বিষয়টি আঁচ করতে পেরে রাত ১০টার দিকে মঙ্গলকান্দি ইউনিয়নের বখতার মুন্সি বাজার এলাকায় প্রাইভেটকারটি রেখে তিন ছিনতাইকারী পালিয়ে যায়। গাড়ি চালকের দেয়া তথ্য মতে প্রাইভেটকারটি সনাক্ত করে উদ্ধার করা হয়। গাড়ি চালক খোরশেদ আলম চট্রগ্রাম জেলার ফটিকছড়ি উপজেলার উত্তর নিছিন্দা গ্রামের মৃত নূর আলমের ছেলে।

পুলিশ এলাকাবাসীকে সাথে নিয়ে রাতভর অভিযান চালিয়ে ভোর ৫টার দিকে মঙ্গলকান্দি ইউনিয়নের লক্ষ্মীপুর গ্রামের একটি জঙ্গল থেকে তিন ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করে।

এ ব্যপারে গাড়ি মালিক পাঁচলাইশ এলাকার ইকবাল হোসেন ভূঞা বাদি হয়ে বৃহস্পতিবার সকালে গ্রেফতারকৃত তিন ছিনতাইকারীর নাম উল্লেখ করে সোনাগাজী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেছেন।
সোনাগাজী মডেল থানার ওসি সাজেদুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।