‘জীবনে আর কখনো ভোট করব না’ বলে কাউন্সিলর প্রার্থীর একি কান্ড!

January 18, 2021 10:01 pm

নিউজ ডেক্সঃ

‘জীবনে আর কখনো ভোট করব না’ বলে পুকুরের ঠাণ্ডা পানিতে সাতবার ডুব দিয়ে, সাতবার কান ধরে উঠবস করলেন মোকলেছুর রহমান নামের এক পৌর কাউন্সিলর প্রার্থী। তিনি মেহেরপুরের গাংনী পৌরসভা নির্বাচনের ৬ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে পরাজিত হয়েছেন।

ওই প্রার্থীর একটি ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়েছে। ভিডিওতে দেখা যায়, শীতের সকালে ঠাণ্ডা পানিতে কান ধরে ডুব দিচ্ছেন মাকলেছুর রহমান। এ সময় তিনি সবার উদ্দেশে বলেন, ‘জীবনে বেঁচে থাকা পর্যন্ত কমিশনার ভোট আর করব না, করব না, করব না।’

এ ব্যাপারে পরাজিত ওই প্রার্থী আরো বলেন, ‘আমি নির্বাচন করতে গেছলাম। সবাই আমাকে দাঁড় করাইছে। তারপর দেখলাম টাকার কাছে সবাই বিক্রি হয়ে গেছে। ভোটের আগের দিন দুপুর বেলা পর্যন্ত আমার ভোট ছিল। পরে দেখছি আমার ভোট আর একটাও নাই। দেখছি এক হাজার টাকার নোট সবার পকেটে পকেটে চলে গেল আর আমার ভোট উল্টে গেল। এরপর আমি মানুষের মনোভাব বুঝতে পারলাম। এরপর আমি তওবা করলাম, জীবনে আর ভোট করব না। কোনো ভালো লোকের জন্য এ জিনিস না। এ জিনিস সব নোংরা লোকেদের জন্য। যারা টাকা খরচ করতে পারবে তাদের জন্য। এ জিনিস কোনো সৎ লোকের জন্য না। এজন্য নির্বাচন থেকে আমি ইস্তাফা দিলাম। জীবনে আর নির্বাচন করব না এবং আমি যদ্দিন বেঁচে আছি যাঁরা ভালো লোক নির্বাচন করতে যাবে তাঁদের আমি নিষেধ করব যে, তোমরা কখনো নির্বাচন করো না।’

মোকলেছুর রহমান আরো বলেন, ‘বেলা ৪টার দিকে পুকুরের জলে নামব, সাতটা ডুব দিব, সাতবার কানধরে উঠবস করব-তাও আমি করেছি। এ পর্যন্ত নির্বাচন ইস্তেহার শেষ করেছি। আমি আর নির্বাচন জীবনে করব না।’

গত ১৬ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত গাংনী পৌরসভা নির্বাচনে ৬ নম্বর ওয়ার্ডে নাসির উদ্দিন ফাইল কেবিনেট প্রতীক নিয়ে ৩৩৪ ভোট পেয়ে কাউন্সিলর নির্বাচিত হন। আর আলোচিত মোকলেছুর রহমান টেবিল ল্যাম্প প্রতীকে ভোট পেয়েছেন ১২৫টি।