কাপাসিয়ায় করোনার টিকায় পাশ্বপ্রতিক্রিয়া নেই

February 19, 2021 6:06 pm

কাপাসিয়া (গাজীপুর) প্রতিনিধি

গাজীপুরের কাপাসিয়া উপজেলায় করোনাভাইরাসের টিকা নিতে সাধারণ মানুষের ব্যাপক আগ্রহ দেখা গেছে। গত এক সপ্তাহে উপজেলা পর্যায়ে দেশের সেরা নির্বাচিত কাপাসিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্তরে করোনা টিকাদানের অনলাইন নিবন্ধন কেন্দ্রের সামনে নারী পুরুষের এমনি উপচে পড়া ভীড়ের চিত্র দেখা গেছে। করোনার টিকা নেওয়ার পর কারো শরীরে কোনো পাশ্বপ্রতিক্রিয়া নেই বলে জানা গেছে।

ইতিমধ্যে টিকা নিয়েছেন উপজেলার সোনারুয়া গ্রামের আবাল কালাম বলেন, ভয়ে এতোদিন আসিনি। আজ দেখছি অনেকেই টিকা নিচ্ছে। আমি নিয়েছি কোনো অসুবিধা হয়নি। আন্জাব গ্রামের মাসুদ করিম বলেন, ভালো আছি। স্থানীয় এস এম পারভেজ জানান, টিকা নেওয়ার পর দু দিন ওই স্থানে ব্যাথা অনুভব করেছি। তবে শরীরে জ্বর বা অন্য কোনো অসুবিধা হয়নি।

বাংলাদেশ নার্সেস এসোসিয়েশন কাপাসিয়া উপজেলা শাখা সভাপতি নাজমা সুলতানা বলেন, আমি টিকা নিয়েছি। সুস্থ আছি, মানব সেবায় কাজ করছি। টিকাদানের অনলাইন নিবন্ধন কেন্দ্রে দীর্ঘ লাইনে দাড়িয়ে থাকা কাপাসিয়া ডিগ্রি কলেজ ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মুহম্মদ আলী এরশাদ হোসেন বলেন, নিজের ও পরিবারের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় টিকা নিতে এসেছি। মানুষের স্বতস্ফুর্ত ভাবে দ্রুত টিকা নেওয়া উচিৎ। টিকা বিষয়ে যাঁরা গুজব বা অপ্রচার ছড়ায় তাঁদের নিন্দা জানাই। একই কলেজের ইংরেজি বিভাগীয় প্রধান মো. লুৎফর রহমান বলেন, আমি নিবন্ধন করতে এসেছি, বিভ্রান্ত না হয়ে টিকা নিতে অনুরোধ করছি। প্রভাষক বাবু অর্পণ চন্দ্র ধর বলেন, সারা বিশ্বের জনজীবন বিপর্যস্ত অবস্থায় টিকা নিয়ে মানুষ সুরক্ষা পেতে পারে।উপজেলার বড়িবাড়ী,কপালেশ্বর ও বেলাশী গ্রামের আমিনুল ইসলাম, ফাখরুল ইসলাম, গিয়াস উদ্দিন ও তাঁর স্ত্রী জানায়, আমরা টিকা নিতে এসেছি।

কাপাসিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার ডাক্তার আবদুস সালাম সরকার জানান, কাপাসিয়া উপজেলায় এ পর্যন্ত ২১৯০ জন টিকা নিয়েছেন। করো শরীরে কোনো ধরনের পাশ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি।