কোম্পানীগঞ্জে খামার ঘরে মিলল মরদেহ, পরিবারের দাবি হত্যাকান্ড

March 6, 2021 11:35 pm

গিয়াস উদ্দিন রনি, নোয়াখালী-

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জের চরএলাহী ইউনিয়ন থেকে মুকবুল আহমেদ (৪৩) নামে এক ব্যক্তির রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। সে দক্ষিণ চরএলাহী গ্রামের ৫নং ওয়ার্ডের হাজী ফকির আহমদের ছেলে।

শনিবার (৬ মার্চ) দুপুর ২টার দিকে পুলিশ নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করে।

জানা যায়, মুকবুল আহমেদ তার খামার ঘরে একা ছিল। তার স্ত্রীসহ পরিবারের সদস্যরা ৩দিন আগে এক আত্মীয়ের বাড়িতে বিয়েতে যায়। শনিবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে পাশ্ববর্তী এক মহিলা মুকবুল আহমেদকে ডাকতে গেলে ঘর থেকে কোনো সাড়া না পেয়ে লোকজন ডেকে জড়ো করেন। এসময় স্থানীয়রা ঘরে ঢুকে চৌকির উপর মুকবুলের মরদেহ দেখতে পেয়ে পুলিশে খবর দেয়। স্থানীয়দের ধারণা একদিন আগে তার মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে। তবে পরিবারের দাবী এটি হত্যাকাণ্ড। তবে পুলিশ তাৎক্ষণিক মৃত্যুর কোন কারণ জানাতে পারেনি।

কোম্পানীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মীর জাহিদুল হক রনি জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট হাতে পেলে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে এবং আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।