মোংলায় করোনায় একজনের মৃত্যু সংক্রমন ঠেকাতে কঠোর বিধি নিষেধ

May 30, 2021 10:15 pm

শেখ রাসেল, বাগেরহাট জেলা প্রতিনিধি

প্রাণঘাতী করোনা সংক্রমন ঠেকাতে মোংলায় আট দিনের কঠোর বিধি নিষেধ, প্রথম দিন ৩০ মে রবিবার অতিবাহিত হয়েছে। বিধি নিষেধ বাস্তবায়ন পৌর শহর প্রবেশপথ সবকটি সড়ক বসানো হয়েছে চেকপাস্ট। জরুরী প্রয়োজন ছাড়া কাউকে ঢুকতে দেয়া হচ্ছেনা। সারাদিন ভ্রাম্যমান আদালত সার্বক্ষনিক অভিযান চালিয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) কমলেশ মজুমদার বলেন, মোংলা উপজেলায় হঠাৎ করে করোনা সংক্রমন বৃদ্ধি পাওয়ায় প্রাথমিকভাবে আট দিনের কঠোর বিধি নিষেধ আরোপ করছি, উপজেলাটি বন্দর কেন্দ্রিক হওয়ায় বিভিন্ন জাহাজ এখানে আসে এবং সেসব জাহাজের নাবিকরা শহরে ঢুকে বাজারঘাট করাসহ ঘুরে বেড়ায়। এজন্য করোনা সংক্রমন বাড়তে পারে বলে জানান তিনি। কঠোর বিধি নিষধের প্রথম দিন আইন অমান্যকারীদের মোবাইল কোর্ট বসিয়ে বেশ কয়েকজনকে অর্থদন্ড দেওয়া হয়েছে বলেও উপজেলা নির্বাহি অফিসার কমলেশ মজুমদার জানান। এদিকে করোনায় আক্রান্ত হয় বিশিষ্ট ব্যবসায়ী মোঃ নুর উদ্দিন (৪২) নামে এক ব্যক্তির মত্যু হয়েছে। সে শহরের মুসলিম পাড়া এলাকার মৃত কামাল উদ্দিনের ছেলে। করোনায় মারা যাওয়া নুর উদ্দিনর স্ত্রী মোংলা সরকারি কলেজের প্রভাষক মমতাজ খানমও করানায় আক্রান্ত হয় খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এছাড়া গত সপ্তাহ শহরের ভাসানী সড়কের বাসিন্দা কাজী সত্তার ফোরম্যান (৯০) নামের এক বৃদ্ধরও করোনায় মৃত্যু হয়। মোংলা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ জীবিতেষ বিশ্বাস বলেন, কট্রাক্ট ট্রসিং এর মাধ্যমে জনছি হোম আইসোলেশন কার্য্যকরি না থাকায় করোনা সংক্রমণের হার বৃদ্ধি পেয়েছে। করোনা আক্রান্ত রোগী এবং পরিবারের সদস্যরা যত্রতত্র ঘুরে বেড়াচ্ছে। প্রশাসন যথাযথ এ্যাকশন নিচ্ছে না। র‍্যাপিড টেষ্টের মাধ্যমে ১২৮ জনের করোনা টেস্ট ৮০ জনের শরীরে করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। এজন্য ৩০ মে থেকে আট দিনের বিধি নিষেধ কার্যকর করা হচ্ছে। এদিকে চলমান কঠোর বিধি নিষিধের আওতায় ওষুধ আর জরুরি নিত্য প্রয়াজনীয় ছাড়া মোংলা শহরের সবকটি দোকান পাট বন্ধ রয়েছে।