জেদ্দায় অবস্থান করছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

June 4, 2016 4:06 am

বিশেষ প্রতিনিধিঃ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সৌদি আরবে পাঁচ দিনের সরকারি সফরে জেদ্দা পৌঁছেছেন। সেখানে প্রধানমন্ত্রীকে লালগালিচা সংবর্ধনা দেওয়া হয়েছে। বাদশা সালমান বিন আব্দুল আজিজ আল সউদের আমন্ত্রণে তিনি সেখানে গেছেন।
শুক্রবার স্থানীয় সময় রাত ৭টা ৫০ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী ও তার সফর সঙ্গীদের বহনকারী বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইট জেদ্দা বাদশাহ আব্দুল আজিজ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে অবতরণ করে।

বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানান যুবরাজ মুহাম্মদ বিন নায়েফ বিন আব্দুল আজিজ এবং সৌদি আরবে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত ও ওআইসিতে স্থায়ী প্রতিনিধি গোলাম মশিহ। এসময় প্রধানমন্ত্রীকে গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়।

যুবরাজ মুহাম্মদ বিন নায়েফ বিন আব্দুল আজিজের ভোজসভায় যোগদানের জন্য বিমানবন্দর থেকে প্রধানমন্ত্রীকে বাদশাহ ফয়সাল প্রাসাদে নিয়ে যাওয়া হয়। ভোজসভা শেষে প্রধানমন্ত্রীকে মোটর শোভাযাত্রা সহকারে জেদ্দা রয়্যাল কনফারেন্স প্যালেসে নিয়ে যাওয়া হয়। সফরকালে তিনি এখানেই অবস্থান করবেন।
সালমান বিন আব্দুল আজিজ আল সউদের বাদশা হিসেবে শপথ নেওয়ার পর বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর এটি হচ্ছে প্রথম সৌদি আরব সফর। এ সফরে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এএইচ মাহমুদ আলী, বঙ্গবন্ধুর কনিষ্ঠ কন্যা শেখ রেহানা এবং এফবিসিসিআই এর ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদল রয়েছেন।
প্রধানমন্ত্রী শনিবার মক্কায় উমরাহ পালন এবং ফজরের নামাজ আদায় করবেন। সন্ধ্যায় তিনি জেদ্দায় এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে রিয়াদে বাংলাদেশ চ্যান্সেরি কমপ্লেক্স ও বাংলাদেশ ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করবেন।

রবিবার জেদ্দা নগরীর আল আন্দালুসে সৌদি বাদশাহর আল সালাম প্রাসাদে প্রধানমন্ত্রী সৌদি বাদশাহের সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে মিলিত হবেন।

সৌদি সরকারের প্রতিরক্ষা বিষয়ক উপমন্ত্রী সালমান বিন সুলতান আল সউদ এবং সৌদি বাদশাহের রয়্যাল কাউন্সিলের উপদেষ্টা ইয়াসের আল মিয়াসহ বেশ কয়েকজন সৌদি মন্ত্রী এবং সরকারের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা সফরকালে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন।
সোমবার সকালে প্রধানমন্ত্রী বিমানে মদিনার উদ্দেশে জেদ্দা ত্যাগ করবেন এবং সেখানে তিনি মদিনা হিলটন হোটেলে অবস্থান করবেন।

প্রধানমন্ত্রী মসজিদে নববীতে আছর এবং মাগরিবের নামাজ আদায় করবেন এবং হযরত মুহাম্মদ (সা.)-এর রওজা মোবারক জিয়ারত করবেন।

সফর শেষে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় প্রধানমন্ত্রীর দেশে ফেরার কথা রয়েছে।

Please follow and like us:

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*