মালিবাগে থেরাপির নামে প্রতিবন্ধী তরুণীকে ধর্ষণ

মার্চ ১১, ২০১৮ ১১:৪৫ সকাল

নিউজ ডেক্সঃ

মালিবাগে থেরাপির নামে প্রতিবন্ধী এক তরুণী রোগীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। নির্যাতিতা ওই তরুণীর পরিবারের অভিযোগ, শারীরিক প্রতিবন্ধী হওয়ায় থেরাপি নিতে ধর্ষণের শিকার হন ওই তরুণী। তরুণীর বাবা বাদী হয়ে রমনা থানায় মামলা করেছেন।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর মালিবাগের পেইন সলুয়েশন অ্যান্ড ফিজিওথেরাপি সেন্টারে থেরাপি নিতে যান প্রতিবন্ধী ওই তরুণী। সেখানে ডা. মাহফুজুর রহমান ওই তরুণীকে থেরাপি দেয়ার বাহানায় ধর্ষণ করে। তরুণীর বাবা বাদী হয়ে রমনা থানায় এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে মামলা করেন। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মফিজুর রহমান জানান, পুলিশ আসামি ডা. মাহফুজুর রহমানকে খুঁজছে। ঘটনার পর থেকে সে পলাতক। আটক করা হয়েছে তার সহকারী রাবেয়াকে। মালিবাগ চৌধুরীপাড়ায় ৮/এ বাড়িতে ওই থেরাপি সেন্টারে চিকিৎসা দেয়া হয়। প্রতিবন্ধী তরুণীকে থেরাপির জন্য গত ১০ দিন ধরেই মাহফুজুর রহমানের কাছে আনা-নেয়া করছিলেন তার মা।

তরুণীর বাবা বলেন, এ মুহূর্তে মাহফুজ পলাতক। কিন্তু আমাকে দূর থেকে বিভিন্নভাবে মামলা তুলে নিতে ভয়ভীতি দেখাচ্ছে। আমার অসুস্থ মেয়ের প্রতি এমন অবিচারের বিচার চাই।