মহাকাশে থেকে পাল্টে গেল যমজ ভাই

March 17, 2018 4:17 pm

নিউজ ডেক্সঃ

টানা বছর খানেক মহাকাশে কাটানোর প্রভাব পড়ল এক মহাকাশচারীর জিনে। মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার সাম্প্রতিক রিপোর্টে প্রকাশ পেয়েছে এই চমকপ্রদ তথ্য। পৃথিবীতে ফেরার পর স্কট কেলি নামে ওই মহাকাশচারীর জিনের সঙ্গে মিলিয়ে দেখা হয়েছে তার যমজ ভাই মার্কের জিন। দেখা গেছে, সাত শতাংশ বদলে গেছে স্কটের জিন।

নাসার রিপোর্টের বরাত দিয়ে আনন্দবাজার বলছে, ৩৪০ দিন আন্তর্জাতিক মহাকাশ কেন্দ্রে থাকার ফলে আগের থেকে দুই ইঞ্চি লম্বা হয়ে গেছেন স্কট। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা, হাড়ের গঠন, দৃষ্টিশক্তিসহ আরও কিছু শারীরিক পরিবর্তন ধরা পড়েছে। প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে, অক্সিজেনের স্বল্পতার সঙ্গে খাদ্যাভ্যাসের পরিবর্তনই এর প্রধান কারণ।

তবে স্কটের ঘটনা ‘স্পেস জিন’ নিয়ে গবেষণার একটা দিক খুলে দিল বলেই মনে করা হচ্ছে। মহাকাশে থাকাকালীন মানবদেহে কিছু বিশেষ জিন সক্রিয় হয়ে ওঠে কি না, তা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই চলছে নানা গবেষণা।

যমজ ভাইজের ওপরে এই পরীক্ষা বলেই নাসা এই প্রকল্পকে ‘টুইন স্টাডি’ নামে চিহ্নিত করেছে। সেই কারণেই স্কটের মহাকাশে যাওয়ার আগে এবং সেখান থেকে ফেরার পরে দুই ভাইয়ের জিন নিয়ে তুলনামূলক পরীক্ষা করা হয়। মার্কও প্রাক্তন মহাকাশচারী এবং তারাই প্রথম যমজ মহাকাশচারী, যাদের ওপর এমন গবেষণা করা হলো।

Please follow and like us: